Pre-loader logo

সুবিধাজনক অবস্থানে শেখ রাসেল

সুবিধাজনক অবস্থানে শেখ রাসেল

পেশাদার ফুটবল লিগে শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব শিরোপা নিশ্চিত করেছে। এখন বাকি দুই ম্যাচ হারলেও তাদের কোনো যায় আসে না। ১৮ ম্যাচে জামাল সর্বোচ্চ ৪৫ পয়েন্ট সংগ্রহ করেছে। অন্যদের এ পয়েন্ট সংগ্রহ করা সম্ভব নয়। লিগ শিরোপার উত্তেজনা শেষ। এখন অপেক্ষা কোন দল রানার্সআপ হবে। শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র মৌসুমের শক্তিশালী দল গড়েছিল। দুর্ভাগ্য বলতে হয় তাদের। ভালো খেলেও বেশ কিছু ম্যাচে পয়েন্ট হারানোয় তাদের পক্ষে চ্যাম্পিয়ন হওয়া সম্ভব হয়নি। এখন রানার্সআপের জন্যই বাকি চার ম্যাচ লড়বে। ঢাকা মোহামেডান ও ঢাকা আবাহনীরও রানার্সআপের সম্ভাবনা রয়েছে। মোহামেডান ১৮ ম্যাচে ৩৪ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। অন্যদিকে দুই ম্যাচ কম খেলে শেখ রাসেলের এখন সংগ্রহ ৩২ পয়েন্ট। আর ১৭ ম্যাচে ঢাকা আবাহনীর ৩১।
মোহামেডান দুয়ে থাকলেও শেখ রাসেল কিছুটা সুবিধাজনক স্থানে রয়েছে। ফরাশগঞ্জ, সকার ফেনী, চট্টগ্রাম আবাহনী ও রহমতগঞ্জের বিপক্ষে ম্যাচ বাকি রয়েছে তাদের। আজ বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে শেখ রাসেল ১৭তম ম্যাচ খেলবে ফরাশগঞ্জের বিপক্ষে। জিতলেই ৩৫ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসবে। এরপর দুই ম্যাচ জিততে পারলে ৪১ পয়েন্ট অ্যাকাউন্টে জমা পড়বে। আর এতেই শেখ রাসেলের রানার্সআপ নিশ্চিত হয়ে যাবে। কেননা মোহামেডানের যে দুই ম্যাচ বাকি রয়েছে তা জিতলেও তাদের পয়েন্ট হবে ৪০। একইভাবে বাকি তিন ম্যাচ জিতলে আবাহনীরও সমান পয়েন্ট দাঁড়াবে। শেখ রাসেলের বড় সুবিধা এখনো মোহামেডান-আবাহনীর ম্যাচ বাকি রয়েছে। এ ম্যাচে হারজিত বা ড্র যাই হোক না কেন এক দলের পয়েন্ট নষ্ট হবে। আর এতেই শেখ রাসেলের রানার্সআপ হওয়ার রাস্তাটা আরও পরিষ্কার হয়ে উঠবে। চার ম্যাচের মধ্যে তিন ম্যাচ জিতলেই শেখ রাসেল লিগটা শেষ করতে পারবে রানার্সআপ হয়েই।
শেখ রাসেলের যে শক্তি বা প্রতিপক্ষের সঙ্গে তুলনা করলে কাজটা মোটেই কঠিন হবে না।

Copyright © 2021 Sayem Sobhan Anvir. All Rights Reserved.